Logo

রোয়াংছড়িতে আওয়ামী লীগ সদস্যকে গুলি করে হত্যা

আবুবকর ছিদ্দীক, বান্দরবান জেলা প্রতিনিধি
প্রকাশ: মঙ্গলবার, ২৩ নভেম্বর, ২০২১
আওয়ামী লীগের সদস্য নিহত

বান্দরবানে সন্ত্রাসীদের ব্রাশফায়ারে স্থানীয় এক আওয়ামী লীগ নেতা নিহত ও দুই জন আহত হয়েছেন। মঙ্গলবার সন্ধ্যা ৭ টার দিকে রোয়াংছড়ি উপজেলার তারাছা ইউনিয়নের তালুকদার পাড়ায় এ ঘটনা ঘটে।

নিহত ওই আওয়ামী লীগ নেতার নাম উথোয়াই নু মারমা (৪২)। তিনি তারাছা ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের ২নং ওয়ার্ড এর সদস্য। এ ঘটনায় তার স্ত্রী উনুচিং মারমা (৩৬) ও অপর এক প্রতিবেশী গুলিবিদ্ধ হয়ে আহত হয়েছেন। হতাহতদের উদ্ধার করে বান্দরবান সদর হাসপাতালে নিয়ে আসা হচ্ছে বলে জানিয়েছেন স্হানীয়রা

মঙ্গলবার (২৩ নভেম্বর) সন্ধ্যা সাড়ে ৭ টার দিকে তারাছা ইউনিয়নের তালুকদার পাড়ায় এ ঘটনা ঘটে ।

রোয়াংছড়ি উপজেলা তারাছা ইউনিয়নের চেয়ারম্যান উথৈায়াই চিং মার্মা জানিয়েছেন, মে মাসের দিকে আগুনে ওই পাড়াটির দোকান ও বসতঘরগুলো পুড়ে যাওয়ার পর থেকে পাড়ার মানুষ বিচ্ছিন্নভাবে ওই এলাকায় বাস করছে। তবে আজ ৭ টার দিকে কিছু দুর্বৃত্ত এসে পাড়ার কয়েকজনকে লক্ষ্য করে অতর্কিত গুলি চালায় । গুলিতে উথোয়াইনুর মৃত্যু হয় বলে ওই এলাকার মেম্বার উচিমং মার্মা ফোনে আমাকে জানিয়েছে ।

বান্দরবানের পুলিশ সুপার জেরিন আখতার জানিয়েছেন, একদল সশস্ত্র সন্ত্রাসী উথোয়াইনু মারমার বাসা ঘেরাও করে গুলি করলে তিনি ঘটনাস্থলে নিহত হযন। তবে কারা এ ঘটনা ঘটিয়েছে তা এখনো জানা যায়নি। সেখানে পুলিশ ও সেনাবাহিনীর সদস্যরা গিয়েছে বলে এসপি জানিয়েছেন।

স্থানীয়রা জানিয়েছেন, সন্ধ্যায় উথোয়াইনু মারমাসহ বেশ কয়েকজন তার বাসায় খাওয়া দাওয়া করার সময় সেখানে সশস্ত্র সন্ত্রাসী অতর্কিত হামলা চালায়। এতে গুলিবিদ্ধ হয়ে উথোয়ানু নিহত ও তার স্ত্রী ও এক প্রতিবেশী আহত হয়।

স্থানীয়রা জানিয়েছেন,জনসংহতি সমিতির সশস্ত্র সন্ত্রাসীরা এ ঘটনা ঘটিয়ে থাকতে পারে। তবে এখনও এ ঘটনায় জনসংহতি সমিতির কোন নেতৃবৃন্দের বক্তব্য পাওয়া যায়নি। দীর্ঘদিন থেকে বান্দরবানে আধিপত্য বিস্তার নিয়ে জনসংহতি সমিতির সাথে স্থানীয় আওয়ামী লীগের দ্বন্দ্ব চলে আসছে।


More News Of This Category
Theme Created By Tarunkantho.Com