Logo
শিরোনাম :
সাভারে স্বপ্নস্বর আবৃত্তি কর্মশালার উদ্বোধন হলো আজ আরব আমিরাতের কাছে নতুন ক্ষেপণাস্ত্রব্যবস্থা বিক্রি করবে ইসরাইল এবার ধুসর ডিম দিলো পাঁতিহাস আ’লীগের জোটে ভোট করতে চাই না; ভাইস চেয়ারম্যান তোফাজ্জল রায়গঞ্জ ভুইয়াগাঁতী উচ্চ বিদ্যালয়; অযত্ন অবহেলায় নষ্ট হচ্ছে সরকারি বিনামূল্যের পাঠ্য বই গোবরচাঁপাহাট মহাবিদ্যালয় সংরক্ষিত পাশসহ চার দিনের লম্বা ছুটিতে ‘বাংলাদেশ ইসলামিক জার্নালিস্ট অ্যাসোসিয়েশন’-এর আত্মপ্রকাশ শিবচরে মালামালসহ পিকআপ ছিনতাই, গ্রেফতার-৪ ঢাকায় আমিরাতের নতুন রাষ্ট্রদূত আব্দুল্লাহ আলি আল হামুদি বাঘায় চাচার ছুরিকাঘাতে চিকিৎসাধিন অবস্থায় ভাতিজার মৃত্যু
অভিনন্দন বার্তা
আজকের তরুণকণ্ঠ'র দ্বিতীয় বর্ষপূর্তি উপলক্ষে সকল কলাকুশলী, লেখক, পাঠক ও শুভানুধ্যায়ীদের আন্তরিক শুভেচ্ছা ও অভিনন্দন।




সৌদিতে নারী নির্যাতন; রিক্রুটিং এজেন্সির মালিক আটক

তরুণকণ্ঠ :
প্রকাশ : বুধবার, ১০ আগস্ট, ২০২২
সৌদিতে নারী নির্যাতন

আ. আলীম, স্টাফ রিপোর্টার:

বাংলাদেশ থেকে বিদেশে শ্রমিক পাঠানোর বৈধ নিবন্ধিত প্রতিষ্ঠান “মেসার্স কনকর্ড অ্যাপেক্স রিক্রুটিং এজেন্সি”। প্রতিষ্ঠানটির বিরুদ্ধে একাধিক অভিযোগ উঠেছে মধ্যপ্রাচ্যে বিভিন্ন প্রলোভন দেখিয়ে অসহায় ও দরিদ্র নারী শ্রমিকদের নিয়ে সৌদিআরবের বিভিন্ন অঞ্চলে যৌনকর্মিদের কাছে বিক্রি করে দিচ্ছেন এমন অভিযোগের ভিত্তিতে এজেন্সির মালিক সহ তার এ কাজে সহযোগি এক নারীকে আটক করেছে র‍্যাপিট এ্যাকশন ব্যাটালিয়ন র‍্যাব-১।

মধ্যপ্রাচ্যে নির্যাতনের স্বীকার একাধিক নারীদের অভিযোগের ভিত্তিতে জানা যায়, কনকর্ড অ্যাপেক্স রিক্রুটিং এজেন্সির মালিক মোঃ আবুল হোসেন (৫৪) এবং তার নারী সহযোগী আলেয়া বেগম (৫০) দেশের প্রত্যন্ত এলাকার দরিদ্র, তালাকপ্রাপ্ত, স্বামীর সংসারে নির্যাতিত নারীদের টার্গেট করে বিদেশে ভালো বেতন ও বিনামূল্যে হজ করার প্রলোভন দেখাতো। এ পর্যন্ত প্রায় এক হাজার নারী শ্রমিককে মধ্যপ্রাচ্যসহ বিভিন্ন দেশে পাঠিয়েছে এ প্রতিষ্ঠানটি।

কিন্তু ঐ দেশে যাওয়ার পর তাদের দেওয়া এসব প্রতিশ্রুতির কোনো কিছুই বাস্তবায়ন তো করা হতোই না, বরং বিভিন্ন ভাবে অবৈধ কাজে বাধ্য করা হতো ভুক্তভোগি অসহায় নারীদের।এসব কাজে অসীকৃতি জানালে শুরু হয় অমানবি ও পাশবিক নির্যাতন। ইতোমধ্যে অমানবিক নির্যাতনের কারণে মৃত্যুর বরন করেছে বেশ কয়েক জন নারী। গত ২৫ শে আগস্ট ২০২১ সালে পাশবিক নির্যাতনে ও অনাহারে মৃত্যু বরনকারী হবিগঞ্জ জেলার নবীগঞ্জের সাজনা বেগম তাদের একজন।

উক্ত প্রতিষ্ঠানের মালিক আবুল হোসেন ও তার সহযোগী নারী আলেয়া বেগমকে গ্রেফতারের পর এসব তথ্য বেরিয়ে এসেছে। গতকাল সোমবার কারওয়ান বাজারে র‌্যাবের মিডিয়া সেন্টারে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে র‌্যাব-১ এর অধিনায়ক লে. কর্নেল আব্দুল্লাহ আল মোমেন এ লোমহর্ষক তথ্য গণমাধ্যমকে জানান।

সম্প্রতি কয়েকজন ভুক্তভোগী নারীর অভিযোগের প্রেক্ষিতে গত রোববার রাতে রাজধানীর পল্টন থানার সিটি হার্ট শপিং কমপ্লেক্সে এক আকস্মিক অভিযান চালিয়ে এহেন ন্যাক্কারজনক ঘটনার অভিযুক্ত “কনকর্ড অ্যাপেক্স রিক্রুটিং এজেন্সির মালিক আবুল হোসেন, ও তার সহযোগী আলেয়া বেগমকে গ্রেফতার করা হয়। এ সময় বিদেশে পাঠানোর জন্য আনা তিন নারীসহ ৩১টি পাসপোর্ট, বিভিন্ন তথ্য ও একাজে ব্যবহৃত মোবাইল ফোন উদ্ধার করা হয়।

গ্রেফতারকৃত আবুল হোসেনকে প্রাথমিক ভাবে জিজ্ঞাসাবাদের তথ্য সুত্র মতে, র‌্যাব-১ এর অধিনায়ক বলেন, দীর্ঘদিন ধরে নিবন্ধিত বৈধ প্রতিষ্ঠান কনকর্ড রিক্রুটিংয়ের আড়ালে নারী পাচার ও নির্যাতনের মতো ন্যাক্কার জনজ অপকর্ম করে আসছেন তিনি। তার এ কাজের অন্যতম প্রধান নারী সহযোগী আলেয়া বেগমসহ দেশের বিভিন্ন অঞ্চলে অসংখ্য দালাল রয়েছে।

কমিশন ভিত্তিক এসব দালালদের মাধ্যমে এরা মূলত সমাজের বেকার, অল্পশিক্ষিত, অসচ্ছল ও দরিদ্র পরিবারগুলোর বিবাহিত, তালাকপ্রাপ্ত নারীদের মধ্যেপ্রাচ্যসহ বিভিন্ন দেশে অধিক বেতনে চাকরি, বিমানে ওঠার অভিজ্ঞতা, রাজকীয় থাকা খাওয়া সুবিধা, স্মার্টফোন নেওয়া এবং সউদীতে হজ করাসহ ধর্মভিত্তিক লোভনীয় চাকরি প্রলোভন দেখিয়ে বিদেশে পাচার করতো।

বিদেশে যাওয়ার পর প্রথমে তারা ভুক্তভোগীদের জানালাবিহীন কক্ষে আটকে রাখে এবং ভয়ভীতি দেখিয়ে ঐ দেশে দালালরা প্রথমে যৌন নির্যাতন
করতো। পরে ২-৩ দিন পর বিভিন্ন জনের বাসায় গৃহকর্মি হিসাবে কাজে পাঠানো হতো। বাসায় নিয়ে যাওয়ার পর তাদের দিয়ে যৌনকর্ম সহ সব ধরনের কাজ করানো হতো। কিন্তু ঠিকমতো খাবার খেতে দেয়া হতো না। অকারণে বেধরক মারধরের মাধ্যমে অমানবিক নির্যাতন করা হতো।

এমনকি অসুস্থতার কথা বললে বৈদ্যুতিক শক দেয়া হতো। এই চক্রের অন্যতম দালাল হিসেবে কাজ করা আলেয়া এর আগে পল্টন এলাকার বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানে শ্রমিক সংগ্রহের কাজ করেছেন। ২০২১ সাল থেকে আবুল হোসেনের কনকর্ড রিক্রুটিং এজেন্সিতে শ্রমিক সংগ্রহের নামে এমন ঘৃনীত কাজ শুরু করেন। বিদেশে পাঠানোর আগে এই নারী শ্রমিকদের পরিবারের সঙ্গে যোগাযোগ ও বিভিন্ন সাদা কাগজে সই নেয়া হতো।

প্রতারনা ও নারী পাচারের অভিযোগে গ্রেফতারকৃত রিক্রুটিং এজেন্সির মালিক ও তার সহযোগী’কে এহেন অপরাধের দৃস্টান্ত মুলক কঠোর শাস্তি ও
ভুক্তভোগী নারীদের ক্ষতি পুরনের জন্য প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে বলে জানিয়েছেন র‍্যাবের এই কর্মকর্তা।


আরো পড়ুন




Theme Created By Tarunkantho.Com