মঙ্গলবার, ২৭ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ০৬:৫৮ পূর্বাহ্ন
বিজ্ঞপ্তি:
অনলাইন নিউজ পোর্টাল “আজকের তরুণকণ্ঠে” জেলা, উপজেলা, বিশ্ববিদ্যালয় ও কলেজ পর্যায়ে সাংবাদিক/প্রতিনিধি নিয়োগ চলছে। আগ্রহীরা  ইমেইলে (newstarunkantho@gmail.com)জীবন বৃত্তান্তসহ পাসপোর্ট সাইজের ছবি ও জাতীয় পরিচয় পত্র সংযুক্ত করে পাঠাতে পারেন।

অভিনব কায়দায় ৩ লাখ টাকা হাতিয়ে নিল প্রতারক বিল্টু

তরুণকণ্ঠ ডেস্ক / ১২০ বার পড়েছে.
প্রকাশ : শুক্রবার, ২৬ জানুয়ারী, ২০২৪, ৫:৫৮ অপরাহ্ন
টাকা হাতিয়ে নিল প্রতারক বিল্টু

মানিকগঞ্জ প্রতিনিধি :

স্ত্রীকে ভারতে চিকিৎসা করানোর কথা বলে বিকাশের মাধ্যমে ৩ লাখ টাকা হাতে নিয়েছে বিল্টু খান নামে এক প্রতারক। সে মানিকগঞ্জ পৌরসভার ৭ নং ওয়ার্ডের বান্দুটিয়া এলাকার মৃত ফজর আলী ওরফে ঘন্টির পুত্র।
জানাগেছে, প্রতারক বিল্টু মানিকগঞ্জ পৌরসভার সাবেক কাউন্সিলর আব্দুর রাজ্জাক পরিচয়ে ০১৬৪৬৭৮৮০২৪ নম্বর থেকে জমি বিক্রয়ের প্রস্তাব দেয় পশ্চিম বান্দুটিয়া গ্রামের চুন্নু খানের পুত্র মোহাম্মদ বেলজুর রহমান খানকে। জমি ক্রয়ে আগ্রহী বেলজুরের সাথে সখ্যতা গড়ে তুলে প্রতারক বিল্টু। এক পর্যায়ে জমির দাম চূড়ান্ত করার জন্য ভুল মালিকের মোবাইল নাম্বার ০১৯১৬৯৪৫৫৬০ দেয়। এই নম্বরে কথা বলে জমির কাগজপত্র দেখতে চাইলে প্রতারক বলে আমার বড় ভাই কানাডায় থাকেন। দেশে আসার পরে জমি রেজিস্ট্রি করে দেওয়া হবে। এমন অবস্থায় সে বায়না বাবদ কিছু টাকা দাবি করে। বিল্টু বলে জমি তো পাবেনই। আমার স্ত্রী খুব অসুস্থ। তাকে ভারতকে নিয়ে যেতে হবে। অনেক টাকা লাগবে। বেলজুর সরল বিশ্বাসে ০১৯১৬৯৪৫৫৬০ এবং ০১৭৩৯৫৪৬৭৮০ বিকাশ নম্বরে ৩ লক্ষ টাকা সেন্ড করে। বিকাশ নম্বর সন্দেহজনক হলে বেলজুর ট্রুকলার এর মাধ্যমে জানতে পারে বিকাশ নম্বরের প্রকৃত মালিক বিল্টু খান। পরে এ বিষয়ে মানিকগঞ্জ থানায় অভিযোগ দায়ের করেন ভুক্তভোগী বেলজুর।
বেলজুর জানায়, জনপ্রতিনিধ হিসেবে আব্দুর রাজ্জাক একজন ভালো মানুষ। তার কথামতো আমি টাকা দিয়েছি। অথচ বিল্টু নিজের ফোন থেকেই আমাকে কল করে কাউন্সিলর পরিচয় দিয়েছিল। ঐ প্রতারকের দুটি মোবাইল নম্বরে বারবার ফোন দিয়েও তাকে পাওয়া যায়নি। বাধ্য হয়ে থানায় অভিযোগ করেছি।
এ বিষয়ে তদন্তকারী কর্মকর্তা মানিকগঞ্জ থানার এসআই আব্দুল মান্নান জানান, তদন্তপূর্বক আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।


এ সম্পর্কিত

Theme Created By ThemesDealer.Com